বাংলায় জরিপ

এই লিংকে ক্লিক করে সমীক্ষায় অংশ নিতে পারবেন অংশগ্রহণ সম্পর্কে আরো তথ্য নিচে দেওয়া হলো

বিশ্বব্যাপী জ্বলা পোড়ার রোগীদের চিকিৎসা ও সেবাযত্ন উন্নত করার জন্য কোন দশটি বিষয়কে সবচেয়ে বেশি প্রাধান্য দেওয়া প্রয়োজন, তা জানার জন্য আমরা এই প্রকল্পটি পরিচালনা করছি। গবেষণা বিষয়ে যাতে রোগী, রোগীর যত্নকারী ও চিকিৎসকরা জোরালো বক্তব্য রাখতে পারেন সে জন্য আমরা চেষ্টা করে যাচ্ছি। আমরা আপনাকে এই সমীক্ষায় বা জরিপে অংশগ্রহণ করার অনুরোধ করছি। আপনার অংশগ্রহণ জ্বলা পোড়ার রোগীদের চিকিৎসা নিয়ে গবেষণা করার ক্ষেত্রে কোন কোন বিষয়ের দিকে মনোনিবেশ করা প্রয়োজন, তা জানতে আমাদেরকে সাহায্য করবে।

গবেষণা প্রাধান্যবলতে কী বুঝায়?

গবেষণা প্রাধান্য হলো, জ্বলা পোড়ার রোগীদের চিকিৎসা ও সেবার ব্যাপারে আপনার প্রশ্ন, উদ্বেগ, আগ্রহ অথবা অনিশ্চয়তা, যার উত্তর এখনো পর্যন্ত গবেষণায় মিলেনি অথচ বিষয়টি আপনার কাছে গুরুত্বপূর্ণ। জ্বলা পোড়ার রোগীদের চিকিৎসা সেবা সম্পর্কে আমরা আপনার অভিজ্ঞতা সম্পর্কে জানতে চাই – এমন কোন কিছু সম্পর্কে আমাদেরকে বলবেন যা আপনার কাছে গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করেন, যেটির উত্তর আপনার জানা নেই। এই ক্ষেত্রে আপনার বাস্তবিক অভিজ্ঞতা আমাদেরকে বুঝতে সাহায্য করবে জ্বলা পোড়ার রোগীদের চিকিৎসা ও সেবা সংক্রান্ত গবেষণায় কোন কোন বিষয়কে সর্বাধিক প্রাধান্য দেওয়া দরকার। সম্ভাব্য প্রাধান্যগুলো হতে পারে নিম্নরূপ:

কী ধরনের ড্রেসিং উত্তম? কী ধরনের পরবর্তী চিকিৎসা বা ফলোআপ ট্রিটমেন্ট উত্তম? চোখে পড়ে এমন শরীরের দাগের ব্যাপারে কী করা?

আপনি গবেষণার জন্য কোন কোন বিষয়কে প্রাধান্য দেন তা জানার মাধ্যমে আমরা জ্বলা পোড়ার গবেষণার জন্য বরাদ্দকৃত অর্থ উত্তম উপায়ে খরচ করতে সক্ষম হবো।

আপনাকে কেন অংশগ্রহণের আমন্ত্রণ জানানো হচ্ছে?

আমরা আপনার কথা শুনতে জানতে চাই, যদি আপনি:

  • উত্তাপে জ্বলা পোড়ার (উত্তাপে বা আগুনের শিখায়, তাপের ছোঁয়ায় বা ছেঁকা লাগার কারণে তবে ইলেকট্রিসিটি কিংবা রাসায়নিক পদার্থের কারণে নয়) একজন রোগী হন বা তা থেকে বেঁচে যাওয়া কেউ হন
  • উত্তাপে জ্বলা পোড়ার (উত্তাপে বা আগুনের শিখায়, তাপের ছোঁয়ায় বা ছেঁকা লাগার কারণে, তবে ইলেকট্রিসিটি কিংবা রাসায়নিক পদার্থের কারণে নয়) একজন রোগীর বেঁচে যাওয়া কারোর সেবাযত্নকারী হন
  • জ্বলা পোড়ার রোগীদের চিকিৎসা ও সেবাযত্নে জড়িত স্বাস্থ্য পেশাদার হন।

অংশগ্রহণের সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে অনুগ্রহ করে নিচের তথ্যটুকু পড়ে নিন। সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে অন্য লোকদের সঙ্গে এ ব্যাপারে কথা বলে নিতে পারেন। আপনার যদি কোনো প্রশ্ন থাকে তবে তা নিয়ে আপনার সাথে কথা বলতে পারলে আমরা আনন্দিত হবো।

এই লিংকে ক্লিক করে সমীক্ষায় অংশ নিতে পারবেন অংশগ্রহণ সম্পর্কে আরো তথ্য নিচে দেওয়া হলো

কিসের জন্য এই সমীক্ষা?

আমাদের লক্ষ্য হলো জ্বলা পোড়ার চিকিৎসা ও সেবা সম্পর্কে রোগী ও চিকিৎসকদের মতামত ও প্রশ্ন জেনে ও বুঝে নেওয়া। তাদের মতামত এবং প্রশ্ন জেনে নিতে পারলে আমরা চিহ্নিত করতে সক্ষম হব জ্বলা পোড়ার চিকিৎসা উন্নত করার জন্য আমাদের কোন কোন বিষয় নিয়ে গবেষণা করা প্রয়োজন। আপনার মনের ধ্যান ধারণা ও অভিমত গবেষণার ক্ষেত্রে যেসব বিষয়কে সর্বাধিক প্রাধান্য দেওয়া উচিত, এসগুলো চিহ্নিত করতে আমাদেরকে সাহায্য করবে। আপনার বাস্তবিক অভিজ্ঞতা আমাদেরকে বুঝতে সাহায্য করবে জ্বলা পোড়ার চিকিৎসা ও সেবা সংক্রান্ত গবেষণায় কোন কোন বিষয়কে সর্বাধিক প্রাধান্য দেওয়া দরকার।

আপনাকে কি অংশগ্রহণ করতেই হবে?

এই সমীক্ষায় অংশগ্রহণ করা বা না করা সম্পূর্ণরূপে আপনার ইচ্ছা। আপনি যে প্রশ্নগুলোর উত্তর দেবেন সেগুলো থেকে আপনার পরিচয় জানা যাবে না এবং তা গোপন রাখা হবে। এর মানে হলো আপনার উত্তর থেকে আমরা আপনার পরিচয় জানতে পারবো না। যদি আমাদেরকে আপনার ইমেইল অ্যাড্রেস দেন, তবে সেটা আপনার উত্তরগুলো থেকে পৃথকভাবে রাখা হবে। ফলে আমার একটির সাথে অন্যটির কোনো সংযোগ স্থাপন করতে সক্ষম হবো না।

যদি আপনি অংশগ্রহণ করেন তাহলে কি হবে এবং আপনাকে কোন কোন করতে হবে?

যদি আপনি অংশগ্রহণ করার সিদ্ধান্ত নেন, তবে আমরা আপনাকে একটি ছোটখাটো অনলাইন জরিপ সম্পন্ন করার অনুরোধ করবো। আপনার সম্পর্কে কিছু মৌলিক প্রশ্ন যেমন আপনার অবস্থান, বয়স এবং লিঙ্গ সম্পর্কে প্রশ্ন করা হবে। যদি আপনি জ্বলা পোড়ার রোগীদের চিকিৎসায় জড়িত স্বাস্থ্য পেশাজীবী হন, তবে আমরা আপনাকে প্রশ্ন করব আপনার চিকিৎসাগত দায়িত্ব কী। তারপর আপনাকে প্রশ্ন করা হবে জ্বলা পোড়ার রোগীদের চিকিৎসা ও সেবাযত্নের ক্ষেত্রে কোন কোন বিষয় আপনার কাছে সবচেয়ে বেশি গুরুত্বপূর্ণ।

এই সমীক্ষায় অংশগ্রহণ করলে আপনার কোন সুবিধা অথবা উপকার হবে বলে আমরা মনে করি না। তবে আপনি যদি এই প্রকল্পের সাহায্য করেন, তাহলে জ্বলা পোড়ার রোগীদের চিকিৎসা নিয়ে গবেষণা করতে গিয়ে কোন কোন বিষয়ে মনোনিবেশ করা দরকার, তা আমরা জানতে পারবো। এর ফলে রোগীরা উপকৃত হবেন।

আপনাকে প্রশ্ন করা হবে পরবর্তী পর্যায়ে দ্বিতীয় একটি সমীক্ষার ব্যাপারে আপনার সাথে যোগাযোগ করতে আপনি রাজি আছেন কি না। দ্বিতীয় সমীক্ষায় আমরা আপনাকে একটি লম্বা তালিকা থেকে দশটি সর্বাধিক গুরুত্বপূর্ণ গবেষণা প্রাধান্য বেছে নেওয়ার অনুরোধ করবো। যদি আপনি দ্বিতীয় সমীক্ষায় অংশ নিতে চান, তবে অনুগ্রহ করে আমাদেরকে একটি ইমেইল অ্যাড্রেস দেবেন। এই ইমেইল অ্যাড্রেস আপনার উত্তরগুলো পৃথকভাবে রাখা হবে। আমরা আপনার উত্তরের সাথে ইমেইলের কোন ধরনের সংযোগ স্থাপন করতে সক্ষম হবো না।

যেহেতু সমীক্ষার প্রশ্নগুলোর যে উত্তর আপনি দেবেন তা সম্পূর্ণরূপে বেনামে থাকবে এবং আপনার প্রদত্ত ইমেইল অ্যাড্রেস আলাদাভাবে রাখা হবে, সেহেতু আমরা আপনার তথ্য উপাত্ত চিহ্নিত করতে পারবো না, যদি পরবর্তী কোনো সময়ে প্রকল্পটিতে থেকে আপনার নাম উঠিয়ে নিতে চান।

এই প্রকল্পে আপনার অংশগ্রহণ কি গোপন রাখা হবে?

এই সমীক্ষায় আপনার অংশগ্রহণ হবে সম্পূর্ণরূপে বেনামে এবং তা গোপন রাখা হবে। এর মানে হলো, কেউ জানতে পারবে না আপনি এতে অংশ নিয়েছেন, যদিনা আপনি নিজে কাউকে তা বলেন। সমীক্ষার জন্য যে তথ্য-উপাত্ত সংগ্রহ করা হবে, তা সুরক্ষিত ও গোপন রাখা হবে। কেবলমাত্র গবেষণা দলের লোকেরা তা ব্যবহার করতে সক্ষম হবেন। যদি আমাদেরকে একটি ইমেইল অ্যাড্রেস দেন, তবে তা আপনার উত্তরগুলো পৃথকভাবে সেটা সংরক্ষণ করা হবে। আমরা আপনার উত্তরের সাথে ইমেইলের সংযোগ স্থাপন করতে সক্ষম হবো না। আমরা আপনার ইমেইল অ্যাড্রেস পাঁচ বছর সুরক্ষিত অবস্থায় রাখবো।

প্রকল্পের শেষে সমীক্ষার উত্তরগুলো বেনামী করে নেওয়া হবে – এর অর্থ হলো আপনার পরিচয় প্রকাশ করতে পারে এমন যে কোন উত্তর বা জবাব সরিয়ে নেওয়া হবে। নাম পরিচয়বিহীন তথ্য-উপাত্ত তখন ‘উন্মুক্ত তথ্য’ হিসাবে প্রকাশ করা হবে। এর অর্থ হলো জনসাধারণের দেখার সুযোগ রয়েছে এমন একটি ডেটাবেইসে তা রাখা হবে। ডেটাবেইস পরিচালনা করবেন ইউনিভার্সিটি অব ব্রিস্টল। এই তথ্য-উপাত্ত থেকে আপনার পরিচয় জানা সম্ভব হবে না।

গবেষণা প্রকল্পের ফলাফল দিয়ে কী করা হবে?

এই প্রকল্পের ফলাফল বিশ্বব্যাপী জ্বলা পোড়ার চিকিৎসা ও সেবা নিয়ে গবেষণা করতে সাহায্য করবে। যে বিষয়ে গবেষণা করা হবে তা রোগী, রোগীর সেবাযত্নকারী এবং স্বাস্থ্যসেবা সরবরাহকারীদের জন্য যেন গুরুত্বপূর্ণ হয় তা নিশ্চিত করে নেবে। আমরা গবেষণা জার্নালে আমাদের ফলাফল প্রকাশ করবো এবং মিটিং এবং সম্মেলনে ফলাফল উপস্থাপন করবো। যখন আমরা আমাদের ফলাফল প্রকাশ করবো তখন আমরা হয়তো উত্তরদাতাদের উত্তরগুলো থেকে হুবহু কিছু উত্তর তুলে ধরবো। তবে তা কে বলেছেন কেউ তা সনাক্ত করতে সক্ষম হবে না। বেনামী তথ্য উপাত্ত জনসাধারণের দেখার উপযোগী ডেটাবেইসে ‘উন্মুক্ত উপাত্ত’’ হিসাবে রাখা হবে। এই প্রকল্পের সাথে কোনো সম্পর্ক নেই এমন কোনো উদ্দেশ্যেও তা ব্যবহার করা হতে পারে। এই তথ্য উপাত্ত থেকে আপনাকে সনাক্ত করা সম্ভব হবে না।

আমরা এই প্রকল্পের ফলাফল আমাদের বিশ্বব্যাপী জ্বলা পোড়ার চিকিৎসা ও সেবায় নিয়োজিত অংশীদারদের সাথে সোশ্যাল মিডিয়া, ইমেইল এবং নিউজলেটার দ্বারা বিনিময় করবো। এই জরিপ সম্পর্কে যেখান থেকে জানতে পেরেছেন সেখানে আমাদের ফলাফল সম্পর্কে জানতে সক্ষম হবেন।

গবেষণাটি কে আয়োজন, অর্থায়ন পর্যালোচনা করছেন?

এই প্রকল্পটি ন্যাশনাল ইন্সটিটিউট ফর হেলথ রিসার্চ (এন.আই.এইচ.আর) দ্বারা অর্থায়িত এবং ইউনিভার্সিটি অব বৃস্টল এবং জেমস লিন্ড অ্যালায়েন্স দ্বারা পরিচালিত। এন.আই.এইচ.আর (NIHR) এবং ইউনিভার্সিটি অফ ব্রিস্টল ফ্যাকাল্টি অফ হেলথ সাইন্সেস রিসার্চ এথিক্স কমিটি এই প্রকল্প পর্যালোচনার দায়িত্বে রয়েছেন।

আরো তথ্য এবং যোগাযোগের বিবরণ

যদি এই প্রকল্প সম্পর্কে আরও তথ্য চান, তাহলে আমাদের ওয়েবসাইটে গিয়ে আরো তথ্য পড়ে নিন:

https://burnsresearch.bristol.ac.uk/

টুইটারেও আমাদেরকে ফলো করতে বা আমাদের সাথে যোগাযোগ করতে পারেন: @burnspriorities

অথবা গবেষক দলকে ইমেইল করতে পারেন: burnsresearch@bristol.ac.uk

এই প্রকল্পে অংশগ্রহণ করার ব্যাপারে যদি আপনার কোনো উদ্বেগ থাকে তাহলে ফ্যাকাল্টি অব হেলথ সায়েন্স রিসার্চ এথিক্স কমিটির সাথে রিসার্চ গভর্নেন্স টিমের মাধ্যমে যোগাযোগ করতে পারেন: research-governance@bristol.ac.uk